Ee. Ma. Yau (2018)

Set in Chellanam, Kochi, the story of Ee. Ma. Yau revolves around the death of Vavachan Mesthiri in a coastal village. It showcases the events that unfold between two evenings and looks at death from different perspectives.

8.3

Share on facebook
Share on twitter
Share on whatsapp
Share on linkedin

Movie

Set in Chellanam in the South Indian state of Kerala, the sudden death of Vavachan Mesthiri throws a family into turmoil as they scramble to plan his funeral.

Ee. Ma. Yau (2018)

 

সিনেমার টাইটেল Ee. Ma. Yau. এর ইংরেজি অর্থ Rest in Peace. টাইটেল থেকেই অনেকটা আঁচ করা যায়, সিনেমার মূলভাব কি। সিনেমার কাহিনী আবর্তিত হয় ভাভাচান নামক একজন বৃদ্ধের মৃত্যুর রাত এবং মৃত্যু পরবর্তী দিনে লাশের সৎকার সংক্রান্ত ঘটনাপ্রবাহ নিয়ে।


সিনেমার পটভূমি কেরালা রাজ্যের সমুদ্রসংলগ্ন একটি গ্রামে। শুরুতে দেখা যায় একটি জাঁকজমকপূর্ণ খ্রিষ্টান শেষকৃত্যের প্রসেশন দেখানোর মধ্য দিয়ে। এর পরের দৃশ্যে দেখা যায়, ভাভাচান নামক একজন বৃদ্ধ তাঁর গ্রামে ফিরে আসে। কথাসূত্রে জানা যায়, গ্রামে অনেকদিন পরপর আসেন তিনি। বাড়িতে এসে ছেলে ইসির সাথে কথাপ্রসঙ্গে তাঁর বাবার শেষকৃত্য নিয়ে গল্প করেন। বলেন তাঁর বাবার শেষকৃত্য খুব জাঁকজমক করে পালন করেছিলেন এবং ইসির কাছে আশাপ্রকাশ করেন যে তাঁর শেষকৃত্যও যেন এমন হয়। এজন্য ইসির হাতে বেশ কিছু টাকা তুলে দেন। কিন্তু সে টাকা যে ডিমনেটাইজেশনের কারণে অচল হয়ে গেছে সেটা বুঝতেই পারেন নি। তারপরও ইসি কথা দেন যে তাঁর সৎকার অনুষ্ঠান জাঁকজমকপূর্ণ করেই পালিত হবে।

Ee. Ma. Yau (2018) Movie Scene-cinemabaaz.xyz
Ee. Ma. Yau (2018) Movie Scene

এসব বলার কিছু সময় পরেই হঠাৎ করে সুস্থসবল ভাভাচান মারা যান। এরপর থেকে সৎকার নিয়ে নানা প্রথা পালন করার ঝক্কি সামাল দিতে হয় ইসিকে। টাকার যোগান দেয়ার জন্য স্ত্রীর শেষ গহনাটুকু বন্ধক দেয়। এখন পর্যন্ত গল্প শুনে বেশ সিরিয়াস মনে হচ্ছে? কিন্তু না। এই গল্পে খুব সুন্দর করে স্যাটায়ারের মাধ্যমে আমাদের সমাজের বিভিন্ন ধরনের মানুষ এবং মানুষের দৃষ্টিভঙ্গি তুলে ধরা হয়েছে। কিছু কিছু মোমেন্টে হয়ত হেসে ফেলবেন কিন্তু বাস্তবতা নিয়ে দর্শককে ভাবিয়ে তুলবে নিশ্চয়ই।


দুইটা দৃশ্যের কথা পার্টিকুলারলি বলব। লাশ যখন সৎকারের জন্য নেয়া হবে তখন ব্যান্ডদল আসে। এই ব্যান্ডদলের লিডারের মাউথ অর্গান (সানাই সম্ভবত) একটু ত্রুটিযুক্ত। সে যখন এটা বাজানো শুরু করে, প্রথমে একটু অদ্ভুত শব্দ সৃষ্টি হয়। পাশে কাঁদতে ভাভাচানের স্ত্রী সেই শব্দে কান্না থামিয়ে দিয়ে অই ব্যক্তির দিকে অবজ্ঞাভরে তাকায়, পরে আবার কাঁদতে শুরু করে। এই যে কান্নার মেকী একটা ভাব, যেটা প্রমাণ করে আমাদের মনে আসলে কি চলছে সেটা আমাদের কাজে কখনই বুঝা যায় না। আরেকটা দৃশ্য খুবই প্যাথেটিক। গয়না বিক্রির টাকায় কেনা দামী কফিনে যখন লাশ বের করা হয়, তখন কফিনের তলা খুলে পড়ে। পাশে থাকা সবাই বলতে থাকে, কফিনটা কমদামের, ভাল না। একজন বলে ফেলে, ইসি বাবার কফিন থেকেও কমিশন খেয়েছে। বেচারা ইসি অসহায়ভাবে তাকিয়ে থাকে, এই কফিন কিনতে সে কি করেছে তা শুধু সে-ই জানে।

Ee. Ma. Yau (2018) Movie-cinemabaaz.xyz
Ee. Ma. Yau (2018) Movie

এমনই আরও অসাধারণ বিভিন্ন দৃশ্যের একটি আর্টিস্টিক সম্মেলন এই সিনেমাটি। সিনেমার প্রত্যেকটি চরিত্রই হয়ত আপনি আপনার জীবনে কোথাও না কোথাও দেখেছেন, অবশ্যই রিলেট করতে পারবেন। জোসে পেল্লেসেরির এর জাল্লিকাটু দেখেছি যেটা এবছর মুক্তি পেয়েছে। সমাজের ক্ষুদ্রাতিক্ষুদ্র ইস্যুগুলোতে তাঁর অবসার্ভেশন চোখে পড়ার মত। কেরালা এমনিতেই খুব সুন্দর একটি জায়গা, এর ওপর সিনেমাটি শ্যুট করা হয়েছে সমুদ্র তীর সংলগ্ন একটি গ্রামে। কিছু দৃশ্য তাই ফ্রেমে বাঁধাই করে রাখার মত। এই সিনেমাটির জন্য বেশ কিছু এওয়ার্ডও জিতেছেন পেল্লেসেরি। Ee. Ma. Yau  মুভিতে ইসির চরিত্রে চেম্বান বিনোদ জোসে এবং তাঁর বন্ধু প্রদীপের চরিত্রে অভিনয় করা ভিনায়াকের পারফরমেন্স মনে দাগ কাটতে বাধ্য IMDB তে ৮.৩ রেটিং পাওয়া এই সিনেমাটি অনেক ক্রিটিকই ভাল রেটিং দিয়েছেন। নিখাদ বিনোদনের অনুসঙ্গ নয় বরং রিয়েলিস্টিক সিনেমাপ্রেমীদের অবশ্যই দেখা উচিত।


লিখেছেনঃ Mahmudur Rahman 

ডাউনলোড লিংক নিচে দেওয়া আছে।

অন্যান্য মুভির জন্য ভিজিট করুন এই লিংকে। 

Ee. Ma. Yau (2018)-cinemabaaz.xyz

Country: India

Genre: , ,

Director: Lijo Jose Pellissery

Writter: P.F. Mathews

Actors: Chemban Vinod Jose, Vinayakan, Dileesh Pothan

Award: Filmfare Award for Best Director – Malayalam, MORE

Duration: 2h