Haajar Bachhar Dhorey (2005)

Sets around some rural people and their village dealing with their lifestyle, struggle of survival, religion, marriage, relations, death and this ongoing process.

8.0

Share on facebook
Share on twitter
Share on whatsapp
Share on linkedin

Movie

হাজার বছর ধরে যেই জীবনধারা বয়ে চলেছে, তাতে আশা-নিরাশা, প্রেম-ভালবাসা, চাওয়া-পাওয়ার খেলা চললেও তা সহজে চোখে পড়ে না, অন্ধকারে ঢাকা থাকে। কঠিন অচলায়তন সমাজে আর যাই থাকুক, নারীর কোন অধিকার নাই। নারী হাতের পুতুল মাত্র। পুরুষ তাকে যেমন নাচায় তেমন নাচে। নিজের ইচ্ছেতে কাউকে বিয়ে করাটা এমন সমাজে অপরাধ, গুরুতর অপরাধ।

Haajar Bachhar Dhorey (2005)

Haajar Bachhar Dhorey (2005)



একটি জনপ্রিয় বাংলাদেশী চলচ্চিত্র। প্রখ্যাত চলচ্চিত্র পরিচালক , ঔপন্যাসিক ও গল্পকার জহির রায়হানের কালজয়ী উপন্যাস হাজার বছর ধরে অবলম্বনে একই শিরোনামে নির্মিত হয় এই সিনেমা। সরকারি অনুদানের এই ছবিটি পরিচালনা করেছেন জহির রায়হানের সহধর্মিনী ও এক সময়ের বিখ্যাত চলচ্চিত্র অভিনেত্রী কোহিনূর আক্তার সুচন্দা। ছবিতে প্রধান দুটি চরিত্র মন্ত ও টুনি র ভুমিকায় অভিনয় করেছেন রিয়াজ ও শারমিন জোহা শশী।

মুভিটি দক্ষ নির্মাণ শৈলী দিয়ে নির্মাণ করে সুচন্দা চলচ্চিত্র বোদ্ধাদের কাছে দারুন ভাবে আলোচিত হন এবং শ্রেষ্ঠ মুভি হিসেবে জিতে নেন মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কার ও জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার।

নদী বয়ে চলেছে আপন গতিতে। গাছে গাছে ফুল ফোটে। আকাশে পাখি উড়ে- আপন মনে গান গায়। হাজার বছর ধরে যেই জীবনধারা বয়ে চলেছে তাতে আশা-নিরাশা, প্রেম-ভালবাসা, চাওয়া-পাওয়ার খেলা চললেও তা সহজে চোখে পড়ে না, অন্ধকারে ঢাকা থাকে। কঠিন অচলায়তন সমাজে আর যাই থাকুক, নারীর কোন অধিকার নেই। নারী হাতের পুতুল মাত্র। পুরুষ তাকে যেমন নাচায় তেমন নাচে। নিজের ইচ্ছেতে কাউকে বিয়ে করাটা এমন সমাজে অপরাধ, গুরুতর অপরাধ। অন্ধকার এই সমাজের আনাচে কানাচে বাস করে কুসংস্কার, বাল্যবিবাহ, বহুবিবাহ, নারী নির্যাতন।

এমনই একটি গ্রামের নাম পরীর দীঘি। আর এই গ্রামকে কেন্দ্র করেই গড়ে উঠেছে মুভির কাহিনী।
কখন এই গ্রামের গোড়াপত্তন হয়েছিল কেউ তা বলতে পারে না। এক বন্যায় কাসেম শিকদার আর তার বউ বানের পানিতে ভেলায় ভাসতে ভাসতে এসে ঠাই নিয়েছিল এই জায়গায়। সেই থেকে এখানে পত্তন হয়েছিল শিকদার বাড়ির।

শিকদার বাড়ীতে বাস করে বৃদ্ধ মকবুল ও তার তিন স্ত্রী সহ আবুল, রশিদ, ফকিরের মা ও মন্তু এবং আরো অনেকে। বৃদ্ধ মকবুলের ছোট বউ টুনির মনটা মকবুলের শাসন মানতে চায় না। সে চায় খোলা আকাশের নিচে বেড়াতে, হাসতে, খেলতে। তাই সঙ্গী হিসেবে বেছে নেয় অল্প বয়সী সঠামদেহী মন্তুকে। মন্ত বাবা-মা হারা অনাত। বিভিন্ন কাজ করে বেড়ায়।


টুনি আর মন্তু সকলের অগোচরে রাতের বেলায় বেরিয়ে পড়ে মাছ ধরতে। বর্ষায় যায় শাপলা তুলতে। এমনি করে দুজন দুজনার কাছে এসে যায়। অব্যক্ত ভালবাসার জোয়ারে ভাসে ওরা দু’জন। কিন্ত কেউ মুখ ফুঁটে বলতে পারেনা মনের কথা, লোক লজ্জার ভয়ে। সমাজের রক্ত চক্ষু ওদের দুরে রাখে।

গাঁও গেরামে যা হয়, কলেরা বসন্তের মড়ক লাগলে উজাড় হয়ে যায় কয়েক ঘর মানুষ। ডাক্তার না দেখিয়ে টুকটাক তাবিজ করে, এভাবেই দিন চলে। মকবুলের আকস্মিক মৃত্যর পর মন্তু যখন মনের কথা টুনিকে খুলে বলে তখন অনেক দেরি হয়ে গেছে।

আবুল, রশিদ, ফকিরের মা, সালেহা কেই নেই। টুনির সঙ্গে মন্তুর অনেক দিন দেখা হয়নি। টুনি হারিয়ে গেছে ওর জীবন থেকে। তবুও টুনিকে মাঝে মাঝে মনে পড়ে মন্তুর। এমনি করে অনেকটা সময় পার হয়েছে। রাতের বেলা সুরত আলীর ছেলে ওর বাপের মতোই পুঁথি করে—
শোন শোন বন্ধুগনে শোন দিয়া মন—
ভেলুয়ার কথা কিছু শোন সর্বজন—

ভেলুয়া সুন্দরীর কথা সবাই শানে। একই তালে, একই সুরে হাজার বছরের অন্ধকার এক ইতিহাস নিয়ে এগিয়ে চলে সবাই। হাজার বছরের পুরনো জোৎস্না ভরা রাতে একই পুঁথির সুর ভেসে বেড়ায় বাতাসে।
কালের আবর্তে সময় গড়ায়। প্রকৃতিতেও পরিবর্তন আসে। শুধু পরিবর্তন আসেনা অন্ধকার, কুসংস্কারাছন্ন গ্রাম বাংলার আচলায়তন সমাজে।

মন্ত চরিত্রে রিয়াজ যেন তার সর্বোচ্চ অভিনয় করে গেছে। টুনি চরিত্রে শশীও ছিল পারফেক্ট। এটিএম শামছুজ্জামানও মকবুল চরিত্রে অসাধারণ অভিনয় করেছে। আসলে এই মুভিতে সকল অভিনেতা অভিনেত্রীদেরকে যেন তাদের পারফেক্ট চরিত্রগুলোই দেওয়া হয়েছিল। অভিনয় সম্মৃদ্ধ চিরসবুজ
গ্রাম-বাংলার অসাধারণ এই মুভিটি কেউ মিস করে থাকলে এখনই দেখে নিতে পারেন।
ভাললাগা গ্যারান্টেড…………

লিখেছেনঃ জাহিদুল ইসলাম



মুভিটির ডাউনলোড লিংক নিচে দেওয়া আছে। চাইলে দেখে নিতে পারেন অসাধারণ মুভিটি।

যেভাবে টরেন্ট ফাইল ডাউনলোড করবেন।

অন্যান্য মুভির জন্য ভিজিট করুন এই লিংকে। 

Haajar Bachhar Dhorey (2005)

Country: Bangladesh

Director: Suchanda

Writter: Zahir Raihan

Actors: Riaz, Sharmin Zoha Shoshee, A.T.M. Shamsuzzaman

Duration: 2h 17min

العربيةবাংলা简体中文NederlandsEnglishFilipinoFrançaisDeutschहिन्दीItaliano한국어Bahasa MelayuPortuguêsРусскийEspañol